“যাবে থেমে” নীহার গোমেজ (আমেরিকা)

“যাবে থেমে”
নীহার গোমেজ (আমেরিকা)

খুব তাড়াতাড়ি শন্কার ছায়ারা পথ ছেড়ে দিয়ে যাবে,
অরুণ আলোর প্রাতে শুনা যাবে মানুষের কোলাহল,
আবার জীবনের সুর ওঠবে বেজে পথিকের গানে গানে,
তরুণ প্রানের উচ্ছ্বলতা বাতাসের বুকে বাজাবে ভৈরবী।

জানি এই মারি আর মড়কের দিন ঠিক শেষ হবে,
খুব তাড়াতাড়ি যাবে থেমে মৃত্যুর মিছিল,
অমানিশার কালো আঁধার ফুঁড়ে,
আগামীর সূর্য্য ছড়াবে আলোর পাখা।

খুব তাড়াতাড়ি যাবে থেমে আতংন্ক আর যুদ্ধ,
মুখের কাবারী স্যানিটাইজারের ঝড় ,
বিশ্বের মানুষ নিবে বুক ভরা নি:শ্বাস,
আসবে কাছে নিবে বুকে ঘুচাবে দূরত্ব।

খুব তাড়াতাড়ি যাবে থেমে মহামারীর কাল,
আবার বিদ্যাপীঠে কচি কাঁচা করবে কোলাহল,
অর্ধাহারে অনাহারে রবে না আর কেউ,
উঠবে জেগে প্রাণের স্পন্দন মেহনতি জনগন।

খুব তাড়াতাড়ি যাবে থেমে করোনার দাপট,
হারানোর কান্নায় ঝরবে না অশ্রুবারি,
স্বজনেরা যাবেনা ছেড়ে অবহেলা বিনাচিকিৎসায়,
পৃথিবীতে আসবে ন্যায্য মানবাধিকার ।

করোনা শিখিয়ে গেল বাস্তবতার চেতনা
একা একা যায়না থাকা ভাল ও পথ চলা,
মিছেই ধন সম্পদ রুপের বাহাদূরী,
মৃত্যু এক অনিবার্য ভয়ংন্কর সত্যপুরী।

খুব তাড়াতাড়ি যাবে থেমে করোনা মহামারি,
আবার সকলে চলবে হাতে হাত ধরি,
নিবে জড়ায়ে বুকেতে গভীর আলিঙ্গনে,
সাম্য মৈত্রীর পতাকাতলে এক হবে নতুন ছন্দে ছন্দে।

এই শেষ কথা নয় জানি, অপরাজেয় মানুষ অমৃতের বরপুত্র ,
করেছে পার কত যুদ্ধ রক্তপাত মহামারী,
ইতিহাসের পাতায় আছে ভুরি ভুরি।

প্রকৃতির যাপিত আঁধার কেটে ,
অবশেষে মানুষের অজেয় আত্নার ধ্বনি,
ঠিক বেজে ওঠে মানুষ ভূগোলে,
মারি মড়কের গাথা মৃত্যুর মোচ্ছব হবে অবসান।

নিশীথ আঁধার প’রে ওই দেখা যায় উদয়ের রাগ,
এবার হবেই হবে আমাদের জয়,
সৃষ্টির স্রষ্টা তুমি আল্লাহ প্রভু ভগবান,
তোমার চরণতলে আজিকে এই নিবেদন।।।

3 thoughts on ““যাবে থেমে” নীহার গোমেজ (আমেরিকা)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *