সব থেকে কম পথে বাংলাদেশের মধ্যদিয়ে বাংলা মেঘালয় করিডর বাস্তবায়নের জন্য দিনাজপুরের সদ্য নির্বাচিত দুই সাংসদকে স্মারক তুলে দিলো তুরা হিলি করিডর কমিটি

২৩শে ফেব্রয়ারী, দিনাজপুর ডেইলি ডেক্সঃ বাংলা থেকে সম্ভব হবে মেঘালয়ের হাজার কিলোমিটার পথ, মাত্র ১০০ কিলোমিটারে তুরা জয়। আর তাই এই তুরা জয়ের জন্য তুরা হিলি জয়েন্ট মুভমেন্ট কমিটি এবার বাংলাদেশের দিনাজপুরের সদ্য দুই পুনঃজয়ী সাংসদকে স্মারকলিপি ও দাবীপত্র তুলে দিলেন। যেখানে উপস্থিত ছিলেন ভারত থেকে কমিটির আহ্বায়ক নবকুমার দাস, অমূল্যরতন বিশ্বাস, রূপক দত্ত, কার্তিক সাহা। হিলির আন্তর্জাতিক সীমান্তের একটি অনুষ্ঠান উপস্থিত দিনাজপুর ৬ থেকে পুনঃনির্বাচিত সাংসদ শিবলি সাদিকে স্মারক ও দাবী পত্র তুলে দেওয়া হয়। এইদিন বাংলাদেশের করিডর কমিটির পক্ষ থেকে উপস্থিত ছিলেন হাকিমপুর উপজেলার প্রাক্তন চেয়ারম্যান আজিজর রহমান, সদ্য নির্বাচিত চেয়ারম্যান হারুন রসিদ হারুন, হিলি পুরসভার মেয়র জামিল হোসেন চলন্ত, সাংবাদিক জাহিদুল ইসলাম, সাহিনুর রেজ্জা সাইন প্রমুখ। এর পাশাপাশি করিডরের দাবী নিয়ে করিডর কমিটির সদস্যরা পৌছে যায় দিনাজপুরে। যেখানে আহ্বায়ক নবকুমার দাস সহ ভারতীয় চার সদস্য কমিটির দিনাজপুরের বাংলাদেশ প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক করেন। বৈঠকের করিডর বাস্তবায়ন নিয়ে একাধিকা আলোচনার পাশাপাশি দুই দেশের মধ্যের মৈত্রী ক্রিকেট ম্যাচ আয়োজনের বিষয়েও আলোচনা হয়। সেইসঙ্গে দিনাজপুর ৩ থেকে সদ্য পুনঃ নির্বাচিত সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ সংসদের হুইপ ইকবালুর রহিম  এর সঙ্গে দেখা করেন করিডর কমিটি। আহ্বায়ক সহ কমিটির চার ভারতীয় সদস্য ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ প্রতিনিধি দিনাজপুর ক্রীড়া সংসদের সম্পাদক সুব্রত মজুমদার ডলার, বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবি ওয়াইহিদুল জামান বুলবুল, মানিক মহম্মদ সহ অন্যান্যরা। এইদিন বাংলাদেশ সংসদের হুইপ ইকবালুর রহিম আমাদের জানান তিনি এই বিষয়টি ইতিমধ্যে বাংলাদেশ সরকারের কাছে তুলে ধরেছেন। এই করিডর বাস্তবায়ন হলে শুধু ভারত উপকৃত হবে তাই নয়, বাংলাদেশের একটা বিরাট অংশের পরিকাঠামো উন্নয়ন, আর্থ সামাজিক উন্নয়ন বাস্তবায়ন সম্ভব হবে। এছাড়াও এই করিডর বাংলাদেশের পর্যটন উন্নয়নের ক্ষেত্রেও দারুন ভাবে কাজ করবে।তিনি আরো জানান প্রয়োজনে তিনি বাংলাদেশ সরকার ও ভারতীয় হাইকমিশনেও যোগাযোগ করবেন। গত দেড় মাস হয়েছে বাংলাদেশের নতুন সরকার গঠিত হয়েছে, তাই কিছু কাজকর্ম সেইভাবে  এগিয়ে নিয়ে যাওয়া সম্ভব হয়নি, তাই এই কাজ আবার শুরু করতে মাননীয় হুইপ ইকবালুর রহিম উপযুক্ত ব্যাবস্থা গ্রহন করবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *